Breaking News

UPSC পরীক্ষার প্রস্তুতি নিয়েছিল, লোকে বলেছিল জীবনে পাস করতে পারবিনা, কঠোর পরিশ্রমে 77 তম রাঙ্ক পেয়ে IAS অফিসার হল হিমাংশু কৌশিক

প্রতিবছর ইউপিএসসি পরীক্ষায় প্রায় 10 লক্ষ পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এই পরীক্ষায়, অনেকেই তাদের ভালো চাকরি ছেড়ে এসে অংশগ্রহণ করে। এই পরীক্ষায় এমন কেউ শীর্ষস্থানীয় হয়, যারা প্রাথমিক শিক্ষাতে শীর্ষস্থানীয় হতে পারে না। যদিও এই প্রাথমিক শিক্ষার ফলাফল ইউপিএসসি পরীক্ষায় খুব একটা প্রভাব ফেলতে পারে না। এরকম অনেক উদাহরণ রয়েছে যা দেখায় যে,

বিদ্যার্থীরা নিষ্ঠা ও কঠোর পরিশ্রমের সাথে সিভিল সার্ভিস পরীক্ষা দিয়ে ভালো ফলাফল নিয়ে সফল হয়েছে। আজকে আমরা আপনাদেরকে এমনই একজন IAS অফিসারের কথা বলব। তিনি হলেন দিল্লির বাসিন্দা হিমাংশু কৌশিক। তিনি তার প্রাথমিক শিক্ষা দিল্লিতেই করেছিলেন। তিনি মাধ্যমিকে 80% নম্বর অর্জন করেছিলেন। কিন্তু তিনি উচ্চমাধ্যমিক ও বি.টেক -এ ভালো নম্বর পাননি।

তবে তিনি 65% নম্বর অর্জন করে বি.টেক পড়াশোনা শেষ করেছিলেন। এরপরই তিনি একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি পেয়ে যান। কিন্তু তার এই কাজটি করার একদম ইচ্ছে ছিল না, কারণ তিনি সেখানে মন খুলে কাজ করার সুযোগ পাচ্ছিলেননা। এই কারণেই তিনি ইউপিএসসি পরীক্ষার প্রস্তুতির সিদ্ধান্ত নেন। হিমাংশু পড়াশোনায় খুব একটা ভালো ছিল না,

তাই সে যখন ইউপিএসসি পরীক্ষা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন তখন অনেকে তাকে হতাশ করে বলেছিল যে, ইউপিএসসি পরীক্ষা তার জন্য নয়। তিনি যখনই এই পরীক্ষার সঙ্গে সম্পর্কিত কোনো প্রশ্ন কাউকে জিজ্ঞাসা করতেন, লোকেরা তাকে দেখে হাসাহাসি শুরু করতো। হিমাংশুকে নিয়ে মজা করার সময় লোকেরা বলতো যে, এটাই দেশের সবচেয়ে কঠিন পরীক্ষা, তুমি এতে পাস করতে পারবে না। তুমি চাকরি ছেড়ে নিজের পায়ে নিজেই কুড়ুল মেরেছো।

হিমাংশু মনে মনে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো যে, যাই হয়ে যাক না কেন তাকে এই পরীক্ষায় পাস করতেই হবে। এই পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার জন্য তিনি একটি কৌশল অবলম্বন করেছিলেন। যার ফলে তিনি পুরো সিলেবাসটিকে খুব ভালোভাবে বুঝতে পেরেছিলেন। এরপর তিনি সেই সিলেবাস অনুযায়ী পড়াশোনা শুরু করেন।
তিনি তখন দিন-রাত ধরে শুধু পড়াশোনাই করতেন। তার ফলস্বরূপ, তিনি 2017 সালে 77 তম স্থান অর্জন করে ইউপিএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিলেন।

আর এই সাফল্যের সাথেই যারা তাকে নিয়ে সমালোচনা করেছিল তাদের সবার মুখ বন্ধ করে দিয়েছিলেন। একটি সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন যে, কিছু শিক্ষার্থী মনে করে তারা পড়াশোনায় খুব ভালো না হওয়ার কারণে ইউপিএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে পারবেন না। তবে কঠোর পরিশ্রম করলে তারা অবশ্যই একদিন সাফল্য পাবে। হিমাংশু এই সাফল্যের সাথে তার এবং তার বাবা-মায়ের নামও আলোকিত করেছিল।।

About Web Desk

Check Also

দেশের জন্য শহীদ হয়েছেন ছেলে, বাবার চোখে জল নিয়ে শেষবারের মতো স্যালুট জানালেন ছেলেকে…

উত্তরাখণ্ডের বাগেশ্বরে অবস্থিত ত্রিশূল পর্বতে পর্বতারোহণ অভিযানের সময় নৌবাহিনী লেফটেন্যান্ট কমান্ডার রজনীকান্ত যাদব একটি হিমবাহের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *