Breaking News

দুধ বিক্রি করার জন্য 30 কোটি টাকা দিয়ে হেলিকপ্টার কিনেছেন ইনি…

একজন পিতা তার পুত্রকে বলল যে, ‘তুমি যদি চাকরি না পাও তাহলে দুধ বিক্রি করা শুরু করো’।এই কথাটি শুনে শিক্ষিত ছেলে রেগেও যেতে পারে এবং রেগে গিয়ে বলতেও পারে যে, ‘এজাতীয় ছোট কাজ আমি করবো না’। তবে কোনো কাজই ছোট বা বড় হয় না। আপনি যদি কোনো কাজ মনোযোগ সহকারে করেন, তবে আপনি সেই কাজ থেকেই প্রচুর অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

আজ আমরা এমনই একজন দুধ ব্যবসায়ীর কথা বলব, যিনি তার ব্যবসার জন্য 30 কোটি টাকার একটি হেলিকপ্টার কিনেছিলেন। প্রতি বছর 1 জুন সারাবিশ্বে দুধ দিবস হিসেবে পালিত হয়। এই দুধ ব্যবসায়ীর নাম হল জনার্দন ভোয়ার। তিনি হলেন মহারাষ্ট্রের বাসিন্দা। তিনি একজন দুধ ব্যবসায়ী এবং তার সাথে একজন কৃষকও। এছাড়াও তিনি রিয়েল এস্টেটের ব্যবসাও করতেন।

তিনি এখন প্রায় 100 কোটি টাকার সম্পত্তির মালিক। কিছুদিন আগেই জনার্দন তার দুধের ব্যবসা বাড়ানোর জন্য 30 কোটি টাকার একটি হেলিকপ্টার কিনেছিলেন। সাধারণত তাকে তার ব্যবসার জন্য প্রায়ই অনেক রাজ্য এবং বিদেশে যেতে হয়। আর যাতায়াতের জন্য তার প্রচুর সময়ও নষ্ট হতো। তিনি তার সময় বাঁচানোর জন্যই হেলিকপ্টারটি কিনেছিলেন।

শুধু তাই নয়, তিনি তার আড়াই একর জমিতে পাইলটের ঘর এবং প্রযুক্তিবিদদের ঘরও তৈরি করেছিলেন। তিনি যখন প্রথমবার এই হেলিকপ্টারটি নিয়ে বের হয়েছিলেন, তখন এটি দেখতে আশেপাশের অনেক লোক জড়ো হয়েছিলেন। তাদের মধ্যে অনেকেই এর ভেতরে বসতে চেয়েছিলেন। জনার্দন কে মাসের 15 দিন তার ব্যবসার কারণে পাঞ্জাব, হরিয়ানা, গুজরাট ও রাজস্থানে যেতে হত। এখন তাদের নিজস্ব হেলিকপ্টার থাকার কারণে তার অনেক সময় সাশ্রয় হয়।

দুধ ব্যবসায়ীরা ক্রমাগত প্রযুক্তিগত জিনিসের সাহায্যে দুধের উৎপাদন বাড়িয়ে দিচ্ছেন। এই আধুনিক প্রযুক্তিটি জনার্দনের ডেয়ারিতেও দেখা যায়। তাকে প্রতিদিন প্রায় কয়েক হাজার লোকের কাছে দুধ পৌঁছে দিতে হয়। আশা করি এই দুধ ব্যবসায়ীর গল্প শুনে আপনি অনেক অনুপ্রেরণা পেয়েছেন। এই দুধ ব্যবসায়ীর গল্প আমাদেরকে বুঝিয়ে দিয়েছে যে, যদি আমরা কোনো কাজ কঠোর পরিশ্রম ও মন দিয়ে করি তাহলে, সেই কাজ থেকেই প্রচুর অর্থ উপার্জন করতে পারব।।

About Web Desk

Check Also

দিব্যা ভারতীর জীবনে ছিল অনেক গোপন কাহিনী, জেনেনিন কি হয়েছিল 5 এপ্রিল 1993 এর রাতে

অভিনেত্রী দিব্যা ভারতীর নাম শুনলেই এক মিষ্টি মুখের মেয়ের কথা মনে পড়ে। খুব অল্প বয়সেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *