Breaking News

ছয় বছরে ১২ টি সরকারি চাকরি লাগিয়েছে, গ্রাজুয়েশনের স্বর্ণপদক পেয়ে আইপিএস অফিসার হলেন দরিদ্র কৃষকের ছেলে

আপনি যদি একাগ্রতার সাথে কঠোর পরিশ্রম করেন তবে আপনার আর্থিক অবস্থা যাই হোক না কেন আপনি সহজেই সাফল্য পেতে পারেন। আপনার দৃঢ় উদ্দেশ্যগুলি আপনাকে আগত অসুবিধাগুলির সাথে লড়াই করার শক্তি দেয়। উন্নত ভবিষ্যতের জন্যে আপনার কঠোর পরিশ্রম চালিয়ে যাওয়া উচিত। আজ আমরা আপনাকে প্রেম সুখ দেলু সম্পর্কে বলতে যাচ্ছি যিনি একজন কৃষকের ঘরে জন্মগ্রহণ করেছিলেন।

বেশির ভাগ লোক এ জাতীয় পরিস্থিতিতে সফল হতে সক্ষম হয় না, তবে তাদের কঠোর পরিশ্রমের কারণে তারা সাফল্য অর্জন করেছে। আইপিএস প্রেম সুখ দেলু রাজস্থানের বিকানা জেলায় জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তারা 8 ভাইবোন ছিল এবং তার বাবা একজন ছোট কৃষক ছিল। প্রেম সুখের শিক্ষা গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে হয়েছিল। তিনি দশম শ্রেণী পর্যন্ত একটি সরকারি স্কুলে পড়াশোনা করেন।

এরপর তিনি বিকাশের দুঙ্গার কলেজ থেকে দ্বাদশ শ্রেণী পর্যন্ত পড়াশোনা করেন এবং তার পরে তিনি মহারাজ গঙ্গা সিং বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। পড়াশোনার প্রতি ভালবাসার স্বরূপ তিনি ইতিহাসের বিষয়ে স্বর্ণ পদক পেয়েছিলেন স্নাতকোত্তর কালে। এগুলো ছাড়াও দারিদ্রতা ও টাকার অভাব ও তার পড়াশোনা কে প্রভাবিত করেছিল। সে বলেছে যে তার বাবার কঠোর পরিশ্রম এবং আর্থিক অবস্থার কথা মাথায় রেখে সে সর্বদা সরকারি চাকরি পাওয়ার ব্যাপারে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ ছিল।

সে জানিয়েছে তার প্রথম লক্ষ্য ছিল সরকারি চাকরি পাওয়া তাই 2010 সালে তিনি বিকেরায় পাটোয়ারী এর জন্য আবেদন করেছিলেন। এতে তিনি সাফল্য পেয়েছিলেন এবং তিনি বিকাশের একটি গ্রামে পাটোয়ারী হিসেবে নিযুক্ত হন। সরকারি জেলার হওয়ার পাশাপাশি তিনি 2011 সালের বিএড করে শিক্ষক হিসেবে কাজ করেছিলেন। শিক্ষক হওয়ার কয়েক দিন পর তাকে তহশিলদার পদে নির্বাচিত করা হয়। তহশিলদার পদে কর্মরত অবস্থায় তিনি ইউপিএসসি পরীক্ষার প্রস্তুতি শুরু করেন।

তিনি বলেছিলেন যে চাকরির পাশাপাশি যেকোনো পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নেওয়া খুবই কঠিন তাই এমন পরিস্থিতিতে সময় দেওয়ার মাধ্যমে ইউ পি এস সির মত শক্ত পরীক্ষার জন্য পড়াশোনা করা আরও কঠিন হয়ে পড়ে। শুধু চাকরি নয় তিনি সময়ের অভাবে কোচিং ও নিতে পারেননি। তাঁর এই কঠোর পরিশ্রমের ফল স্বরূপ 2015 সালের ইউপিএসসি পরীক্ষায় পাশ করেন এবং পুরো দেশে 170 তম স্থান অর্জন করে এবং তিনি হিন্দি মাধ্যমে ছাত্রদের মধ্যে তৃতীয় স্থান অর্জন করেছিলেন।।

About Web Desk

Check Also

দিব্যা ভারতীর জীবনে ছিল অনেক গোপন কাহিনী, জেনেনিন কি হয়েছিল 5 এপ্রিল 1993 এর রাতে

অভিনেত্রী দিব্যা ভারতীর নাম শুনলেই এক মিষ্টি মুখের মেয়ের কথা মনে পড়ে। খুব অল্প বয়সেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *